দল থেকে বাদ পড়ে যা বললেন হাফিজ

1

স্পোর্টস ডেস্ক : ফর্মের তুঙ্গে রয়েছেন মোহাম্মদ হাফিজ। পাকিস্তানের সবশেষ নিউজিল্যান্ড সফরে দলের বাজে পারফরম্যান্সেও উজ্জ্বল ছিলেন তিনি। দুই ম্যাচে ৯৯* ও ৪৪ রানের ইনিংস খেলেছেন সাবেক এই অধিনায়ক।

আরব আমিরাতে চলমান টি-টেন ক্রিকেটেও রানের বন্যা বইয়ে দিচ্ছেন মোহাম্মদ হাফিজ। শনিবার আফিফ হোসেন ধ্রুবদের বাংলা টাইগার্সের বিপক্ষে ৩০ বলে ৬১ রানের লড়াকু এক বিধ্বংসী ইনিংস খেলেন মারাথা আরাবিয়ান্সের ওপেনার হাফিজ।

এমন অবিশ্বাস্য ফর্মে থাকার পরও দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে আসন্ন তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের দলে সুযোগ পাননি ৪০ বছর বয়সী এই তারকা অলরাউন্ডার।

আগামী ১১, ১৩ ও ১৪ ফেব্রুয়ারি লাহোরের গাদ্দাফি স্টেডিয়ামে দক্ষিণ আফিকার বিপক্ষে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজে মুখোমুখি হবে পাকিস্তান ক্রিকেট দল। ঘরের মাঠে অনুষ্ঠিতব্য এই সিরিজকে সামনে রেখে রোববার ২০ সদস্যের দল ঘোষণা করেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)।

দল ঘোষণার পর প্লেয়ার লিস্টের একটি ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট দিয়ে আরবিতে মোহাম্মদ হাফিজ লেখেন- ‘ইন্নাল্লাহা মা’আস সাবিরিন’ (আল্লাহ ধৈর্যশীলদের পছন্দ করেন)।

দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট দল পাকিস্তান সফরে যাওয়ার আগেই পিসিবি থেকে অনুমতিপত্র নিয়ে আরব আমিরাতে টি-টেন ক্রিকেট খেলতে যান মোহাম্মদ হাফিজ।

তার আগে গত ২০ জানুয়ারি সংবাদমাধ্যমকে সাবেক এই অধিনায়ক বলেছেন, দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজের জন্য আমি পুরোপুরি প্রস্তুত আছি। আমাকে টি-টেন টুর্নামেন্টে খেলার জন্য অনুমতি দেয়া হয়েছে, যা পাকিস্তানের আন্তর্জাতিক সিরিজের সাথে সাংঘর্ষিক নয়। আমি বায়ো সুরক্ষার মধ্যেই থাকব। আশা করছি টি-টেন ক্রিকেটে খেলে দেশের হয়ে টি-টোয়েন্টি সিরিজে খেলতে পারব।

কিন্তু দল ঘোষণার পর স্কোয়াডে নিজের নাম না দেখে অবাকই হয়েছেন মোহাম্মদ হাফিজ।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here