২ সেকেন্ডের জন্য করোনা হয়েছিল ট্রাম্পের ছেলের!

3

অনলাইন ডেস্ক : মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ১৪ বছর বয়সী ছেলে ব্যারন করোনায় আক্রান্ত হয়েছিল। তবে বর্তমানে সে সুস্থ বলে জানিয়েছেন ট্রাম্প। গতকাল বুধবার রাতে আইওয়া অঙ্গরাজ্যের দেস মইনসে এক নির্বাচনী সমাবেশে ব্যারনের করোনা সংক্রমণ সম্পর্কে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, ‘তার এটা (করোনা) স্বল্প সময় তথা ২ সেকেন্ডের জন্য হয়েছিল।’

ডেইলি মেইলের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ট্রাম্পের ছেলে ব্যারনের করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছিল। তবে এটা খুবই অল্প সময়ের জন্য এবং ব্যারন এখন ভালো আছে। তার এখন করোনা নেগেটিভ এসেছে।

সমাবেশে ট্রাম্প বলেন, ‘আমার মনে হয় না সে জানে যে তার কি হয়েছিল। কারণ তারা তরুণ এবং তাদের ইমিউনিটি সিস্টেম অনেক শক্তিশালী এবং তারা এর সঙ্গে লড়াই করতে পারে।’ ব্যারন এখন করোনামুক্ত আছেন বলেও উল্লেখ করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

নিজের ছেলের সুস্থতার কথা উল্লেখ করে যুক্তরাষ্ট্রের স্কুলগুলো যত দ্রুত সম্ভব খুলে দেওয়ার ওপর জোর দেন ট্রাম্প। তিনি বলেন, ‘এমনটাই হচ্ছে। লোকজন আক্রান্ত হচ্ছে আবার করোনা চলেও যাচ্ছে। তাই শিশুদের স্কুলে ফেরানো উচিত।’

ব্যারনের বিষয়ে মেলানিয়া ট্রাম্প বলেন, ‘যেটা ভয় ছিল সেটি সত্যি হলো যখন ব্যারনের করোনা শনাক্ত হয়। তবে ভাগ্যক্রমে সে একজন শক্তিশালী কিশোর এবং তার মধ্যে কোনো উপসর্গ দেখা যায়নি। একদিক দিয়ে আমি খুশি যে আমরা তিনজনই একই সময়ে আক্রান্ত হয়েছিলাম। ওই সময় আমরা একে অপরের যত্ন নিতে পেরেছি এবং একসঙ্গে সময় কাটাতে পেরেছি।’

গত ২ অক্টোবর ট্রাম্প নিজেই টুইট বার্তায় সস্ত্রীক করোনায় আক্রান্ত হওয়ার খবরটি জানান। এরপর অবস্থার অবনতি হলে ট্রাম্পকে ওয়াল্টার রিড সামরিক হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে তিনদিন চিকিৎসা শেষ সোমবার হোয়াইট হাউসে ফেরেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। তারপরই হোয়াইট হাউসের একের পর এক কর্মকর্তার করোনা সংক্রমণের খবর সামনে আসতে থাকে।

বর্তমানে ট্রাম্প এবং মেলানিয়া দুজনই সুস্থ আছেন। এমনকি গত সোমবার থেকে নির্বাচনী প্রচারণাও শুরু করে দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প।

 

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here